আটঘরিয়ায় অন্ত:সত্ত্বা স্কুলছাত্রী : সন্তানের পিতৃ পরিচয়ে দিশেহারা

নিজস্ব প্রতিবেদক : আট মাসের অন্ত:সত্ত্বা ১০ম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রী তার সন্তানের পিতৃ পরিচায়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন। ভবিষ্যতের সন্তানের পিতৃ পরিচয়ের দাবীতে মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন। ঘটনাটি ঘটেছে পাবনার আটঘরিয়া উপজেলার দেবোত্তর ইউনিয়নের চাঁদপুর গ্রামে। মঙ্গলবার গ্রাম্য শালিসে কোন শুরাহা না হওয়ায় আটঘরিয়া থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন মেয়েটির বাবা।

অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার দেবোত্তর ইউনিয়নের চাঁদপুর গ্রামের মাসুদ আলীর ছেলে আব্দুল হোসেন (১৮) ১০ম শ্রেণীর স্কুল পড়ুয়া মেয়েকে প্রায়ই উত্যক্ত করত। এরই এক পর্যায়ে প্রেমের ছলনায় ঐ মেয়েকে দৈহিক সম্পর্কের এক পর্যায়ে মেয়েটি অন্ত:সত্ত্বা হয়ে পড়ে। লম্পট আব্দুলকে বার বার বিয়ের কথা বললে সে অস্বীকার করে। এরই এক পর্যায়ে বিষয়টি এলাকায় জানানি হলে মাতব্বরেরা বিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিলে লম্পট আব্দুল অস্বীকার করে।

আজ মঙ্গলবার (২০ নভেম্বর) সকালে চাঁদপুর হানাই মাষ্টারের বাড়িতে দেবোত্তর ইউনিয়ন পরিষদের ইউপি সদস্য রফিক উদ্দিনের সভাপতিত্বে এক গ্রাম্য শালিশ বসে।

শালিশে কোন শুরাহা না হওয়ায় থানায় অভিযোগের সিধান্ত দেয় গ্রাম্য প্রধানবর্গ।

মেয়েটি ৮ মাসের অন্ত:সত্তা হয়েছে স্বীকার করে স্থানীয় ইউপি সদস্য রফিক উদ্দিন বলেন, চেষ্টা চলছে তাদেরকে বিয়ে দেওয়ার জন্য।

এ ব্যাপারে আটঘরিয়া থানার এএসআই বুলবুল হোসেন জানান, এ ব্যাপারে আটঘরিয়া থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *