কনোনামুক্তি ও বিশ্বশান্তি কামনায় তৈংবৌংমা (গঙ্গা) পূজা ও প্রার্থনা

দহেন বিকাশ ত্রিপুরা, খাগড়াছড়ি : ত্রিপুরা সম্প্রদায়ের প্রধান সামাজিক উৎসব বৈসু উৎসবের আজ প্রথম দিন অর্থাৎ হারি বৈসু। দিনটি উপলক্ষে খাগড়াছড়িতে বিশ্ব শান্তি কামনায় নতুন বৎসরকে স্বাগত জানাতে জলে তৈবৌংমা (জল দেবী বা গঙ্গা/গঙ্গী) র পূজা দেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৩ এপ্রিল ২০২১খ্রি.) সকালে ত্রিপুরাদের হারি বৈসু দিনে জেলা সদর খাগড়াপুর এলাকায় খাগড়াছড়ি নদীতে ভিন্নধর্মী একটি আয়োজন করেন। এ সময় গঙ্গা পূজায় অংশগ্রহণ করেন ভারত প্রত্যাগত উপজাতীয় শরনার্থী বিষয়ক টাস্কফোর্স এর চেয়ারম্যানের সহধর্মিণী মল্লিকা ত্রিপুরা, খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মংসুইপ্রু চৌধুরী অপু, বাংলাদেশ ত্রিপুরা কল্যাণ সংসদের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সভাপতি খাগড়াপুর মহিলা কল্যাণ সমিতির নির্বাহী পরিচালক ও নারী নেত্রী শেফালিকা ত্রিপুরা, সাধারণ সম্পাদক অনন্ত কুমার ত্রিপুরা, অর্থ ও পরিকল্পনা বিষয়ক সম্পাদক ও নারী নেত্রী শাপলা দেবী ত্রিপুরা’সহ স্থানীয় এলাকার নারী পুরুষ ও সুশীল সমাজের নেতৃবৃন্দ।

উল্লেখ্য যে, ত্রিপুরা নারীরা (বিশেষ করে) বৈসুর দিনগুলোতে নিজে, সমাজে, পরিবার, দেশ ও বিশ্ব শান্তি কামনায় সকালে নদীতে গিয়ে স্নান করে নদীর পাড়ে (জল লাগোয়া বালুচরে) কলাপাতা ভিসিয়ে তাতে ফুল সাজিয়ে তৈবৌংমা (জলদেবী বা গঙ্গা/গঙ্গী)কে পূজা দিয়ে প্রণাম করা হয়। ফুল দিয়ে তৈবৌংমা পুজায় কেউ কেউ মোমবাতি বা চেরাক বাতি ও আগরবাতি জ্বালিয়ে থাকে। এ সময় যে যার মতো বর প্রার্থনা করে থাকে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *