কামিন্স আইপিএল ও টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে আশাবাদী

স্পোর্টস: করোনাভাইরাসের প্রভাবে বন্ধ হয়ে থাকা অধিকাংশ বৈশ্বিক ক্রীড়া ইভেন্ট কবে নাগাদ মাঠে ফিরবে, তার কোনো নিশ্চয়তা নেই। তবে দেরিতে হলেও এই বছরের আইপিএল মাঠে গড়ানোর ব্যাপারে আশাবাদী প্যাট কামিন্স। সূচি অনুযায়ী চলতি বছরের শেষের দিকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপও হবে বলে বিশ্বাস অস্ট্রেলিয়ার এই পেসারের।

আইপিএলের সবচেয়ে দামি বিদেশি খেলোয়াড় হলেন কামিন্স; গত ডিসেম্বরে ১৫ কোটি ৫০ লাখ রুপিতে তাকে দলে নেয় কলকাতা নাইট রাইডার্স। গত ২৯ মার্চ শুরু হওয়ার কথা ছিল আইপিএলের ত্রয়োদশ আসর। করোনাভাইরাসের কারণে তা পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে অন্তত আগামী ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত। তবে সার্বিক অবস্থা বিবেচনায় ফ্রাঞ্চাইজিভিত্তিক টুর্নামেন্টটি আরও পিছিয়ে যাওয়া এখন অনেকটাই নিশ্চিত।

তবে দলের কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলে কামিন্সের মনে হয়েছে, দেরিতে হলেও এবারের আসর মাঠে গড়াবে। “তারা (আয়োজকরা) নিশ্চিতভাবে এটা এখনও বাতিল বা এই ধরনের কিছু করেনি। এটা এখনও স্থগিত অবস্থায় আছে। এজন্য কয়েকদিন পর পর আমরা আমাদের দলের সঙ্গে যোগাযোগ রাখি।” “অবশ্যই টুর্নামেন্টটি আয়োজনের ব্যাপারে এখনও সবাই আগ্রহী।

তবে ভাইরাসটির ছড়িয়ে পড়ার ঝুঁকি কমানোয় মূল বিষয়।” সমস্যা মিটে গেলে পরে কোনো এক সময়ে টুর্নামেন্টটি আয়োজনের ব্যাপারে কর্তৃপক্ষ ভীষণ আত্মবিশ্বাসী ও আশাবাদী বলে জানতে পেরেছেন কামিন্স।

আগামী অক্টোবর-নভেম্বরে অস্ট্রেলিয়ায় বসবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আসর। ততদিনে বিশ্বের সব ক্রীড়া ইভেন্ট স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরবে বলে আশা করেন কামিন্স। “বিশ্বকাপের এখনও ছয়-সাত মাস বাকিৃ(এর মাঝে) অনেক কিছুই বদলে যেতে পারে।”

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *