কোভিড-১৯: বিশ্বজুড়ে মৃত্যু ১০ লাখ ছাড়াল

বিদেশ : বিভিন্ন দেশে ফের সংক্রমণ বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ার মধ্যেই কোভিড-১৯ এ বিশ্বজুড়ে মৃত্যু ১০ লাখ ছাড়িয়ে গেছে বলে জানিয়েছেন গবেষকরা। জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের কোভিড-১৯ ড্যাশর্বোডের তথ্য অনুযায়ী, মঙ্গলবার বাংলাদেশের স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে ৮টা নাগাদ বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া মহামারীটিতে মৃত্যু ১০ লাখ ৮২৫ জনে দাঁড়িয়েছে।

মোট মৃত্যুর প্রায় অর্ধেকই ঘটেছে তিনটি দেশ, যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিল ও ভারতে। করোনাভাইরাসজনিত অসুস্থতায় মৃত্যুর সংখ্যা ৫ লাখ থেকে মাত্র তিন মাসের মধ্যে দ্বিগুণ হয়ে গেল। এর মধ্যে শুধু যুক্তরাষ্ট্রেই মৃত্যু হয়েছে ২ লাখ ৫ হাজার ৬২ জনের। এরপরে থাকা ব্রাজিলে মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৪২ হাজার ৫৮ জনের এবং তৃতীয় স্থানে থাকা ভারতে মৃতের সংখ্যা ৯৫ হাজার ৫৪২ জনে দাঁড়িয়েছে।

বিশ্বব্যাপী কোভিড-১৯ এ মোট মৃত্যুর প্রায় ৪৫ শতাংশ ঘটেছে এই তিনটি দেশে আর তিন ভাগের একভাগ ঘটেছে লাতিন আমেরিকায়। সেপ্টেম্বরের এ পর্যন্ত গড় মৃত্যুর ওপর ভিত্তি করে করা বার্তা সংস্থা রয়টার্সের হিসাব অনুযায়ী, প্রতি ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে ৫ হাজার ৪০০ জনেরও বেশি লোকের মৃত্যু হচ্ছে। এই হিসাবে প্রতি ঘণ্টায় প্রায় ২২৬ জনের এবং প্রতি ১৬ সেকেন্ডে একজনের মৃত্যু হচ্ছে।

৯০ মিনিটের একটি ফুটবল ম্যাচ দেখার মধ্যেই গড়ে ৩৪০ জনের মৃত্যু হচ্ছে। বিবিসি জানিয়েছে, প্রকৃত মৃত্যুর সংখ্যা সম্ভবত আরও অনেক বেশি বলে সতর্ক করেছেন বিশেষজ্ঞরা। জাতিসংঘ মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস মৃত্যুর সামগ্রিক চিত্রকে ‘মন-অসাড়’ করে দেওয়া ও মোট সংখ্যাটিকে ‘একটি পীড়াদায়ক মাইলফলক’ বলে অভিহিত করেছেন। “তারপরও প্রতিটি ও প্রত্যেকটি স্বতন্ত্র জীবনের প্রতি আমাদের নজর রাখতে হবে,” এক ভিডিও বার্তায় বলেছেন তিনি।

“তারা কারও বাবা ও মা ছিল, কারও স্ত্রী ও স্বামী ছিল, ভাই ও বোন, বন্ধু ও সহকর্মী ছিল। রোগটির নিষ্ঠুরতার কারণে ব্যথা বহুগুণ বেড়ে গেছে,” বলেছেন গুতেরেস। গত বছরের ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের উহান থেকে করোনাভাইরাস বিশ্বময় ছড়িয়ে পড়ার প্রায় ১০ মাসের মধ্যে এ ভাইরাসজনিত মহামারীতে মৃত্যুর সংখ্যা আরেকটি মর্মান্তিক মাইলফলক ছাড়িয়ে গেল।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *