ক্যারিবীয়দের লজ্জাজনক ব্যর্থতায় হতাশ ব্রায়ান লারা

স্পোর্টস: সুপার টুয়েলভের শুরুতেই মুখোমুখি ইংল্যান্ড-ওয়েস্ট ইন্ডিজ। কঠিন দুুই প্রতিপক্ষের প্রতিদ্বন্দ্বিতা দেখতে মুখিয়ে ছিল ক্রিকেট প্রেমীরা। তবে লড়াইটা আর হলো কই? ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নদের লজ্জায় ডুবিয়েছে অসিরা। ৫৬ রানের সহজ লক্ষ্যে ব্যাট করে ৭০ বল বাকি থাকতেই জয় নিশ্চিত করে ইংল্যান্ড। একঝাঁক তারকা ক্রিকেটার দলে থাকা সত্ত্বেও এমন পারফরম্যান্স যে কারোর কাছেই চরম হতাশার। ক্যারিবীয়দের লজ্জাজনক ব্যর্থতায় হতাশ কিংবদন্তি ক্রিকেটার ব্রায়ান লারাও। দুবাইতে সুপার টুয়েলভের প্রথম ম্যাচে মাত্র ৫৫ রানে অলআউট হয়ে যায় শিরোপাধারী ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে এক অঙ্কের রানে সাজঘরে ফেরেন উইন্ডিজের ১০ ব্যাটার। একমাত্র ক্রিস গেইলের ব্যাট থেকে আসে দুই অঙ্কের রান। তাও ১৩! টি- টোয়েন্টি ক্রিকেটে এটি তৃতীয় সর্বনিম্ন দলীয় সংগ্রহ। খেলোয়াড়দের দ্রুত উইকেট বিলিয়ে দেয়াকে দায়িত্বজ্ঞানহীন বললেন লারা। তিনি বলেন, ‘এটা ভীষণ হতাশাজনক, দায়িত্বজ্ঞানহীন একটা পারফরম্যান্স। একজন ওয়েস্ট ইন্ডিয়ান হিসেবে এই পারফরম্যান্সকে বর্ণনা করা মতো ভাষা আমার জানা নেই। আমি ভীষণ হতাশ।’ টসে জিতে উইন্ডিজকে প্রথমে ব্যাট করতে পাঠান ইংরেজ অধিনায়ক ইউইন মরগান। তার সিদ্ধান্তকে সঠিক প্রমাণ করে ম্যাচের দ্বিতীয় ওভারেই এভিন লুইসকে সাজঘরে ফেরত পাঠান ক্রিস ওকস। এরপরে একের পর এক উইকেট হারিয়ে মাত্র ১৪.৪ ওভারেই ৫৫ রানে গুটিয়ে যায় কায়রন পোলার্ডের নেতৃত্বাধীন ওয়েস্ট ইন্ডিজ। আদিল রশিদ দুই রান খরচ করে চার উইকেট নেন এবং মুঈন আলী নেন দুই উইকেট। সহজ লক্ষ্যে খেলতে নেমে শুরুটা ভালো করতে পারেনি ইংল্যান্ড। পাওয়ার প্লের মাঝেই জেসন রয় ও জনি বেয়ারস্টোকে হারায় ইংলিশরা। ভালো করতে পারেননি মঈন আলী (৩) ও লিয়াম লিভিংস্টোন (১)। তবে ছোট লক্ষ্যে ২২ বলে ২৩ রানের ইনিংস খেলে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন জশ বাটলার। ইংলিশ অধিনায়ক ইউইন মরগান ৭ বলে অপরাজিত থাকেন ৭ রানে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *