নিউজিল্যান্ডে ২৪ ঘণ্টায় ৭.৪ মাত্রার দুই ভূমিকম্প

বিদেশ : মাত্র ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে রিখটার স্কেলে ৭ মাত্রার চেয়ে বেশি তীব্রতা নিয়ে পরপর দুটি ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে নিউজিল্যান্ডে। বৃহস্পতিবার দুপুরের পর ৭.৪ মাত্রার ভূমিকেম্পর পর শুক্রবার রাত প্রায় একটায় আবারও ভূমিকম্প অনুভূত হয় দেশটিতে। সেখানকার ভূতাত্ত্বিক ঝুঁকি নিরীক্ষণ সংস্থা জিওনেট জানিয়েছে, গতকাল শুক্রবার নিউজিল্যান্ডের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে গিসবর্ন উপকূলে আঘাত হানে ওই ভূমিকম্প।

রিখটার স্কেলে দ্বিতীয় ভূমিকম্পের তীব্রতাও ৭.৪। খবর জি নিউজ, নিউজল্যান্ড হেরাল্ড। শুক্রবার গিসবর্ন উপকূল থেকে ৭০০ কিলোমিটার দূরে এই ভূমিকম্প আঘাত করে। ভূগর্ভস্থ গভীরতা ছিল ৩৩ কিলোমিটার। এর আগে নিউজিল্যান্ডের স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার বেলা দেড়টায় আর একটি ভূমিকম্প আঘাত হানে দেশের উত্তর অংশে।

রিখটার স্কেলে তারও তীব্রতা ছিল ৭.৪। কোথাও কোনও ক্ষয়ক্ষতি হয়নি বলে পুলিশের এক মুখপাত্র জানিয়েছেন। জাতীয় জরুরি ব্যবস্থাপনা সংস্থা আশ্বস্ত করে জানিয়েছে, ভূমিকম্পের জেরে সুনামির আশঙ্কা নেই। তবে, নিউজিল্যান্ড ও তার পার্শ্ববর্তী পর্যটন কেন্দ্র ফিজি ও ভানুয়াতুতে সুনামি সতর্কতা জারি হয়েছে।

দ্য প্যাসিফিক সুনামি সতর্ককারী সেন্টার জানিয়েছে, কার্মাডেক দ্বীপের দক্ষিণে এবং নিউজিল্যান্ডের উত্তরের দ্বীপ থেকে ৮০০-১০০০ কিলোমিটার উত্তর-পূর্বে ভূমিকম্পটির উৎপত্তিস্থল ছিল। দ্য মার্কিন ভূতাত্ত্বিক সমীক্ষা সংস্থা বলছে, ১৮ জুনের ভূমিকম্পটির উৎপত্তিস্থল ছিল নিউজিল্যান্ডের উত্তর আইল্যান্ডের অপোটিকি শহর থেকে ৬৮৫ কিলোমিটার উত্তর-পূর্বে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *