পাবনার মানুষের ভালোবাসায় সিক্ত হয়ে বিদায় নিলেন জসিম উদ্দিন

রফিকুল ইসলাম সুইট : পাবনার সর্বস্তরের মানুষের ব্যাপক ভালোবাসায় সিক্ত হয়ে বদলী জনিত কারণে বিদায় নিলেন পাবনা জেলা প্রশাসক মো. জসিম উদ্দিন। বদলী আদেশ পাওয়ার পাবনার অধিকাংশ প্রতিষ্ঠান ও সংগঠনের পক্ষ থেকে তাকে ব্যাপক বিদায়ী সংবর্ধনা দেয়া হয়। পাবনা জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, পাবনা প্রেস ক্লাব, চেম্বার্স অব কমার্স, উপজেলা ও ইউনিয়ন পরিষদ এর চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ার ও মেম্বর, অফিসার্স ক্লাব, কামিল মাদ্রাসা, ভুমি অফিস, সাংস্কৃতিক সংগঠন আফা, আঞ্জুমান মফিদুল ইসলাম, ইছামতি নদী উদ্ধার আন্দোলন কমিটি সহ পাবনার অধিকাংশ প্রতিষ্ঠান ও সংগঠনের পক্ষ থেকে তাকে ব্যাপক বিদায়ী সংবর্ধনা দেয়া হয়।
ইছামতি নদী উদ্ধার আন্দোলন কমিটির সাধারণ সম্পাদক ও আঞ্জুমান মফিদুল ইসলাম এর কষাদক্ষ মো. হাবিবুর রহমান বলেন-ডিসি জসিম উদ্দিন একজন মেধাবী দক্ষ জেলা প্রশাসক ছিলেন। কথায় ও কাজে মিল থাকায় তিনি পাবনার মানুষের কাজে ব্যাপক জনপ্রিয় মানুষ হয়ে উঠেছিলেন।
সুজানগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীনুজ্জামান বলেন- জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিন শুধু একজন জেলা প্রশাসকই ছিলেন না তিনি পাবনার মানষের একজন যোগ্য অভিভাবক ছিলেন। কামনা করি তিনি যেন সরকারের বড় কর্মকর্তা বা নীতি নির্ধারনি পর্যায়ের ব্যাক্তি হয়ে উঠেন।
সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো জয়নাল আবেদিন বলেন- ডিসি স্যার আমাদের বন্ধুর মতো ছিলেন-দুরুত্ব রাখতেন না। সব সময় সাহস জুগিয়েছেন যার জন্য আমরা কাজে উৎসাহিত হতাম। আমরা একই পরিবারের সদস্যের মতো ছিলাম। স্যার বর্তমান সরকারে নির্দেশনা, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা, উন্নয়ন, শিক্ষা কে গুরুত্ব দিয়ে কাজ করতেন।
পাবনা সংবাদ পত্র পরিষদ এর সভাপতি আব্দুল মতীন খান বলেন- মো. জসিম উদ্দিন একজন চৌকস জেলা প্রশাসক ছিলেন। জসিম উদ্দিন পাবনার মানুষের মন জয় করে নিয়েছিলেন। তিনি যে সব কার্যক্রম শুরু করেছিলেন সে কাজ গুলোর ধারাবাহিকতা থাকলে ভালো হবে।
পাবনা প্রেস ক্লাবের সভাপতি প্রফেসর শিবজিত নাগ বলেন- জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিন পাবনা প্রেস ক্লাবের সাথে ব্যাপকভাবে সম্পৃক্ত ছিলেন। তিনি একজন প্রেস বান্ধব জেলা প্রশাসক ছিলেন। তিনি পাবনার মানুষের সাথে মিশে গিয়েছিলেন।
পাবনা জেলা প্রশাসক মো. জসিম উদ্দিন বলেন- বদলী আদেশ হওয়ার পর কেমন যেন মনে হতো কোথায় কোন ভুল করে রেখেছি পাবনার মানুষ হয়ত ভালোভাবে বিদায় দিবে না। কিন্তু এখন দেখছি পাবনার মানুষ আমাকে এতো ভালো বেসেছে যা আমার জীবনে স্মরনিয় হয়ে থাকবে। পাবনার অধিকাংশ প্রতিষ্ঠান ও সংগঠনের পক্ষ থেকে আমাকে ব্যাপক বিদায়ী সংবর্ধনা দেয়া হচ্ছে এটা একজন মানুষের জন্য বিশাল পাওয়া। আমি পাবনার মানুষের কথা সারা জীবন মনে রাখব। পাবনার মানুষের জন্য আমার দোয়ার খোলা।
উল্লেখ্য. জসিম উদ্দিন প্রায় দেড় বৎসর পাবনা জেলা প্রশাসক ছিলেন- তিনি পাবনার শিক্ষার্থীদের কে প্রতিষ্ঠান মুখী করতে, মুক্তিযুদ্ধ ও মুক্তিযুদ্ধেও চেতনা নতুন প্রজন্মের মধ্যে ছড়িয়ে দিতে, উন্নয়ন ও শান্তি প্রতিষ্ঠাসহ বিভিন্ন বিষয় গুরুত্ব দিয়ে কাজ করে পাবনার মানুষের মন জয় করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *