পাবনা-৫ আসনে নৌকার পালে চাঙ্গা : ধানের শীষে ভাটা

রফিকুল ইসলাম সুইট : আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পাবনা-৫ (সদর) আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী গোলাম ফারুক প্রিন্স ও তার নেতাকর্মীরা ব্যাপক গণসংযোগ করছেন। ভোর থেকে গভীর রাত পর্যন্ত চলে এই গণসংযোগ। তার পক্ষে অনেকগুলি দল অলাদা আলাদাভাবে গণসংযোগ ব্যস্ত রয়েছেন। বাড়ি-বাড়ি গিয়ে ভোট প্রার্থনা করায় প্রচার প্রচারনায় নৌকার পক্ষে ব্যাপক গণ জোয়ার সৃষ্ঠি হয়েছে।

শনিবার পাবনা-৫ আসনে সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, সর্বত্রই নৌকার পোষ্টার, ফেষ্টুন, মাইকিং, মা সমাবেশ, মিছিল ও মিটিংয়ে ব্যস্ত রয়েছেন নেতাকর্মীরা। আওয়ামী লীগ ও তার অঙ্গও সহযোগী সংগঠনসহ বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষ গোলাম ফারুক প্রিন্সে পক্ষে কাজ করছে।
গোলাম ফারুক প্রিন্সের ব্যাক্তিগত ইমেজ এবং দলীয় ঐক্য নির্বাচনী কার্যক্রমে ব্যাপক গতি দেখা যাচ্ছে।

পাবনা জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রেজাউর রহিম লাল বলেন, জেলা, উপজেলা, পাড়া-মহল্লা, গ্রাম পর্যন্ত যেসকল আওয়ামী লীগের কমিটি রয়েছে সেসকল নেতাকর্মীরা একজোট হয়ে নৌকা প্রার্থীর পক্ষে কাজ করায় পাবনা সদর আসনে আবারও নৌকার গণ জোয়ার সৃষ্টি হয়েছে। আগামী ৩০ ডিসেম্বর বিপুল ভোটটের ব্যাবধানে আমরা ধানের শীষ কে পরাজিত করব।

অপরদিকে তার প্রধান প্রতিপক্ষ জামায়াত নেতা মাওলানা ইকবাল হোসাইন ধানের শীষ নিয়ে নির্বাচন করছে। ইকবালের পক্ষে জামায়াত নেতাদের হালকা পাতলা নির্বাচনী কার্যক্রমে দেখা গেলেও দেখা মিলছে না বিএনপি নেতাকর্মীদের। ফলে নৌকার প্রার্থীর একক আধিপাত্য এখন নির্বাচনী মাঠে। সবার মধ্যে আলোচনা হচ্ছে ব্যাপক ভোটে জিতবে নৌকা। এরকম পরিস্থিাততে মনভেঙ্গে ফেলেছে ধানের শীষের কর্মী সমর্থকেরা। ফলে ধানের শীষের নেতাকর্মীদের মধ্যে কাজে মনোযোগ কমে যাচ্ছে বলে মনে করছে স্থানীয়রা।

দুর্বল প্রচারণা এবং বিএনপি নেতাকর্মীদের সম্পৃক্ততা কম হওয়ায় ভাটা পরছে ধানের শীষে এবং ব্যাপক প্রচার, প্রার্থীর ক্লিন ইমেজ, ঐক্যবদ্ধ নেতাকর্মীদের গণসংযোগ নৌকার পালে বইছে চাঙ্গা হওয়া।

এ ব্যাপারে জেলা বিএনপির দপ্তর সম্পাদক জহুরুল ইসলাম বলেন, জেলা বিএনপির নেতারা সদর আসনের প্রার্থীর পক্ষে সরাসরি কাজ না করলেও জেলা নেতারা পাবনা-২, পাবনা-৩ ও পাবনা-৪ আসনের বিএনপির প্রার্থীদের সাথে কাজ করছেন। তিনি আরো বলেন, পাবনা-৫ (সরদ) আসনে পৌর বিএনপির নেতাকর্মীরা কাজ করছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *