ভারতের বিরোধী দল কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ভারতের বিরোধী দল কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে সোনিয়া গান্ধীর কন্যা এবং রাহুল গান্ধীর ছোট বোন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী ভদ্রকে। ৪৭ বছর বয়সী পিয়াঙ্কাকে উত্তর প্রদেশের পূর্বাঞ্চলের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। গতকাল বুধবার প্রিয়াঙ্কাকে দলের সাধারণ সম্পাদক পদে নিয়োগের কথা ঘোষণা করেন কংগ্রেস সভাপতি এবং প্রিয়াঙ্কার ভাই রাহুল গান্ধী। এক বিবৃতিতে তিনি জানিয়েছেন, আগামি মাসের প্রথম সপ্তাহ থেকেই কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব গ্রহণ করবেন প্রিয়াঙ্কা। লোকসভা ভোটে পশ্চিম উত্তর প্রদেশের দলের সংগঠনের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে তাকে। কংগ্রেসের এই সিদ্ধান্তকে আস্তিনের বড় তাস বলে মনে করছেন রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা। আবার কেউ কেউ একে কংগ্রেসের মাস্টারস্ট্রোক হিসেবেও দেখছেন। প্রিয়াঙ্কা বরাবরই আমেঠি এবং রায়বরেলি কেন্দ্রে ভাই রাহুল ও মা সোনিয়ার হয়ে প্রচারণা চালিয়ে এসেছেন। এবার এলেন সক্রিয় রাজনীতিতে অন্য মেজাজে। যা বিজেপিকেও চাপে ফেলে দিল বলে মনে করা হচ্ছে। ফেব্রুয়ারি মাসের প্রথম সপ্তাহে দায়িত্ব নেবেন প্রিয়াঙ্কা। এবার লোকসভা নির্বাচনে রায়বরেলি লোকসভা আসন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। আর সরে যাবেন কংগ্রেস হাই কমান্ড সোনিয়া গান্ধী। ছেলেকে দলের সর্বোচ্চ পদ ছেড়ে দিয়েছেন তিনি। এবার মেয়েকে ছেড়ে দেবেন তার দীর্ঘদিনের লোকসভা আসন। এমনটাই শোনা যাচ্ছে। এই বিষয়ে কংগ্রেসের শীর্ষ নেতা মোতিলাল ভোরা বলেন, ‘প্রিয়াঙ্কাজিকে দায়িত্ব দেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত। এর ফলে শুধু উত্তরপ্রদেশ পূর্বেই প্রভাব পড়বে না, প্রভাব পড়বে গোটা উত্তরপ্রদেশে।’ প্রিয়াঙ্কার চালচলন, কথাবার্তায় ভারতের প্রয়াত প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীর ছায়া খুঁজে পান অনেকেই। গতবার লোকসভা ভোটের সময়ে উত্তর প্রদেশের রায়বরেলি ও আমেঠিতে কংগ্রেসের হয়ে রীতিমতো প্রচার চালিয়েছিলেন তিনি। দাদার মতোই তিনিও রাজনীতিতে আসুন, কংগ্রেসের দল থেকে বহুদিন আগেই এমন দাবি উঠেছিল। কিন্তু প্রিয়াঙ্কা গান্ধী এতে নিজে আগ্রহী ছিলেন না। তবে দলে যোগ না দিলেও গত লোকসভা ভোটের পর কংগ্রেসে যে রাজীব কন্যার গুরুত্ব বেড়েছে, তা টের পাওয়া গিয়েছিল। সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *