ভারতে আক্রান্তের সংখ্যায় উল্লম্ফন

বিদেশ : প্রাণঘাতী নতুন করোনাভাইরাসের সংক্রমণ মোকাবেলায় দেওয়া লকডাউন শিথিলের পর থেকে ভারতে কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যায় উল্লম্ফন দেখা যাচ্ছে। বুধবার থেকে বৃহস্পতিকার সকাল পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে তিন হাজার ৫৬১ জন নতুন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছে। এ সময়ের মধ্যে আরও ৮৯ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।

জানুয়ারিতে প্রথম রোগী শনাক্ত হওয়ার পর ভারতে এখন পর্যন্ত কোভিড-১৯ এ জ্ঞাত আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫২ হাজার ৯৫২ তে; মৃত্যু এক হাজার ৭৮৩ জনের। এ সংখ্যা যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্যের তুলনায় অনেক কম। সেজন্য দেশটিতে আগেভাগে লকডাউন ঘোষণাকে কৃতিত্ব দেওয়া হচ্ছে। সংক্রমণ মোকাবেলায় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী মার্চেই দেশজুড়ে লকডাউন আরোপ করেছিলেন।

কয়েক সপ্তাহের কঠোর বিধিনিষেধের কারণে দেশটিতে আক্রান্ত-মৃত্যুর সংখ্যায় স্থিতাবস্থা দেখা গেলেও অর্থনীতি সচল করতে লকডাউন শিথিলের পর মের শুরু থেকেই ওই চিত্র পাল্টে যায়। সর্বশেষ তিনদিনেই দেশটিতে ১০ হাজারের বেশি মানুষের দেহে কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়েছে। সপ্তাহখানেক আগেও ভারতে প্রতিদিন দেড় থেকে দুই হাজার করে নতুন আক্রান্ত শনাক্ত হত, এখন এ সংখ্যা তিন হাজার ছাড়িয়ে গেছে।

মুম্বাই, দিল্লি, আহমেদাবাদের মতো তুলনামূলক ঘনবসতিপূর্ণ শহরগুলোতেই সংক্রমণ হু হু করে বাড়ছে বলে রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে। আক্রান্তদের মধ্যে এখন পর্যন্ত ১৫ হাজার ২৬৭ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন বলে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে।

ভারতে আগামী ১৭ মে পর্যন্ত লকডাউন চলবে। সংক্রমণের হার বেশি এমন এলাকায় নানা বিধিনিষেধ বহাল থাকলেও সংক্রমণ তুলনামূলকভাবে কম এমন এলাকাগুলোতে ব্যবসা-বাণিজ্য ও গাড়ি চলাচলের অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *