ভারতে ওষুধ কারখানার বিষাক্ত গ্যাসে নিহত ২

বিদেশ : ভারতের বিশাখাপত্তনমে আবারও একটি ওষুধ কারখানা থেকে বিষাক্ত গ্যাস লিক করে মারা গেছে দুজন। অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন আরও চারজন। পুলিশ জানিয়েছে, সোমবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে শহরের পারওড়ারা এলাকার একটি ওষুধ কারখানা থেকে গ্যাস লিক শুরু হয়। কর্মীরা সঙ্গে সঙ্গে পুলিশকে খবর দেন। খবর এনডিটিভির।

গত মাসেও বিশাখাপত্তনমের দক্ষিণ শহরতলির কাছে গোপালপত্তনম এলাকায় একটি রাসায়নিক কারখানা থেকে বিষাক্ত গ্যাস লিক করে দুই শিশুসহ ১১ জন মারা যান। আগের দুর্ঘটনা থেকে শিক্ষা নিয়েই এবার তড়িঘড়ি পদক্ষেপ নেন বলে জানান পুলিশের শীর্ষ কর্মকর্তা উদয় কুমার। তিনি জানান, ঘটনাস্থলে বিশাল পুলিশ বাহিনী ও দমকল বাহিনী গিয়ে উদ্ধারকাজ শুরু করে। বন্ধ করে দেয়া হয়েছে গোটা কারখানাটি। উদয় কুমার আরও জানিয়েছেন, খুব দ্রুত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনায় প্রাণহানি কম হয়েছে।

যে দুজনের মৃত্যু হয়েছে এবং যারা অসুস্থ হয়েছেন, তারা ওই কারখানারই কর্মী। তবে কর্মীরা আগে থেকেই সতর্ক হওয়ায় কারখানার বাইরে গ্যাস ছড়িয়ে পড়তে পারেনি। তা না হলে অনেক বড় বিপদের সম্ভাবনা ছিল। তবে কীভাবে এ দুর্ঘটনা ঘটল তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এ ক্ষেত্রে কারও গাফিলতি ছিল কিনা তাও তদন্ত করে দেখা হবে বলে জানিয়েছেন উদয় কুমার। মুখ্যমন্ত্রী জগমোহন রেড্ডি ঘটনার সবিস্তার রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছেন।

তবে স্থানীয় প্রশাসন জানিয়েছে, গোপালপত্তনমের ঘটনা থেকে শিক্ষা নিয়েই এবার তৎপরতার সঙ্গে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা গেছে। বড়সড় বিপদ এড়ানো সম্ভব হয়েছে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *