ভারত দ্রুত সিদ্ধান্ত চায় বিশ্বকাপ নিয়ে

স্পোর্টস: ঝুলে আছে আগামী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ভাগ্য। স্থগিত হয়ে আছে অনেক সিরিজ ও টুর্নামেন্টও। ১৬ দলের বিশ্বকাপটি হবে কি-না, নিশ্চিত না হওয়ায় স্থগিত থাকা অন্য প্রতিযোগিতাগুলোর সূচি ঢেলে সাজানো থমকে আছে। তাই বিশ্বকাপ নিয়ে শিগগিরই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া উচিত বলে মনে করছে ভারতের ক্রিকেট বোর্ড-বিসিসিআই।

আগামী ১৮ অক্টোবর থেকে ১৫ নভেম্বর অস্ট্রেলিয়ায় হওয়ার কথা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। কিছুদিন আগে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার প্রধান নির্বাহী কেভিন রবার্টস জানান, সূচি অনুযায়ী টুর্নামেন্টটি আয়োজন করায় ঝুঁকি দেখছেন তারা। বুধবার আইসিসির বোর্ড সভায় টুর্নামেন্টের ভবিষ্যৎ নিয়ে আলোচনা হওয়ার কথা। তবে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা শিগগিরই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে না বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বিসিসিআইয়ের কোষাধ্যক্ষ অরুণ সিং ধুমাল রয়টার্সের সঙ্গে ফোনালাপে জানান, বিষয়টি ঝুলিয়ে রাখা হবে অন্যায্য। “যে কারোরই কোনো কিছু নিয়ে পরিকল্পনা করার আগে একটি পরিষ্কার ধারণা থাকা প্রয়োজন। দেখা যাক, কিভাবে সবকিছু এগোয়।” করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে যদি বিশ্বকাপ পিছিয়েও যায়, সেক্ষেত্রে বিসিসিআইয়ের হয়তো খুব একটা আফসোস থাকবে না।

কারণ, ওই সময় আইপিএল আয়োজনের ভাবনা বিসিসিআইয়ের পক্ষ থেকে আগেই জানানো হয়েছে। গুঞ্জন আছে, বিশ্বকাপ পিছিয়ে যেতে পারে ২০২১ সালে। সেক্ষেত্রে পরের বছর ভারতে হতে যাওয়া বিশ্বকাপের পরের আসরও পিছিয়ে যাবে। ধুমাল জানান, আগে তারা এবারের আসর নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দেখতে চান।

“আইসিসিতে এমন কোনো আলোচনা হয়েছে কি-না, আমার ধারণা নেই। প্রথমে তাদের ঘোষণা করতে হবে যে, এই বছর বিশ্বকাপ হচ্ছে কি-না। তা নিশ্চিত হলেই কেবল সূচি সাজানো নিয়ে কাজ করা যেতে পারে।” তবে বিশ্বকাপ পিছিয়ে দেওয়া হলে সঙ্গে সঙ্গে ভারত তাদের ক্রিকেটারদের দ্রুত অনুশীলনে ফেরাবে না বলে নিশ্চিত করেছেন ধুমাল। পরিস্থিতি বিবেচনা করেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *