রোজা রেখে প্রখর রোদে কৃষকের ধান কেটে দিলেন পাবনা জেলা ছাত্রলীগ

রফিকুল ইসলাম সুইট : করোনার কারণে শ্রমিক সংকট ও অসময়ে বৃষ্ঠির প্রভাবে মাঠের পাকা ধান নিয়ে বিপাকে পরা কৃষকের সহায়তায় রোজা রেখে প্রখর রোদ্র উপেক্ষা করে ক্ষেতের পাকা ধান কেটে দিয়ে কৃষকের পাশে দাড়ালেন পাবনা জেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। গতকাল পাবনা সদর উপজেলার দোহারপাড়া এলাকায় কৃষকের জমির ধান কেটে দিয়েছেন পাবনা জেলা ছাত্রলীগের অর্ধশতাধিক নেতাকর্মীরা।

জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি ফিরোজ আলী ও সহ-সভাপতি মেহেদি হাসানের নেতৃত্বে ছাত্রলীগের অর্ধশত নেতাকর্মীরা ধান কেটে আঁটি বেঁধে মাথায় করে ঐ কৃষকের বাড়ী পৌছে দেন।

এসময় ধানকাটায় অংশগ্রহণ করে জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি রপু চৌধুরী, তপু রায়হান, সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুল ইসলাম,রাকিব বিশ্বাস,নাট্য বিতর্ক বিষয়ক সম্পাদক রেজাউল মুন্সি,উপ পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক লিখন, উপ কৃষি বিষয়ক সম্পাদক হাসিব, সদর উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান বাবু, সাব্বির আহমেদ, মেহেদী হাসান আহাদ, পৌর ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সিফাত, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রিয়ন, সামসুল হুদা ডিগ্রি কলেজের সহ সভাপতি আরিফ প্রমূখ।

উপকৃত কৃষক বলেন- করোনা পরিস্থিতির কারণে ধান কাটার কামলা পাওয়া যাচ্ছে না। এর পর মাঝে মাঝেই বৃষ্ঠি হচ্ছে আবার কাল বৈশাখী ঝড় হতে পারে এ সব নিয়ে দুশচিন্তায় ছিলাম। ছাত্র লীগের ছেলেরা ধান কেটে বাড়ী পৌছে দেয়ায় খুব উপকৃত হয়েছি।

জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মেহেদি হাসান বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় কৃষকের পাশে দাঁড়ানোর অংশ হিসেবে আমরা ধান কাটায় অংশ নিয়েছি। কয়েকদিন যাবৎ কৃষকের ধান কেটে সহায়তা করছি। করোনা ভাইরাসের প্রভাবে এবং অসময়ে বৃষ্ঠির কারণে কৃষক ধান কাটার জন্য শ্রমিক পাচ্ছেন না। জমির ধান সময়মতো কাটতে না পারলে ক্ষতিগ্রস্থ হবেন তারা। কৃষক ক্ষতিগ্রস্থ হলে দেশ ক্ষতিগ্রস্থ হবে। দেশের স্বার্থে পাবনা জেলা ছাত্রলীগের নেতৃত্বে বিভিন্ন ইউনিট ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা কৃষকের ধান কেটে বাড়িতে পৌঁছে দিয়েছে। এর আগেও আমরা কয়েকজন কৃষকের ধান কেটে বাড়ী পৌছে দিয়েছি। এই কাজ অব্যাহত থাকবে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *