শর্ত প্রসঙ্গে বিস্মিত দীঘি

বিনোদন: নতুন ছবি ‘মানব দাবন’। যেখানে কলকাতার বনি সেনগুপ্তের সঙ্গে অভিনয়ের কথা শোনা যাচ্ছিলো বাংলাদেশের অভিনেত্রী প্রার্থনা ফারদিন দীঘির। চুক্তি না হলেও অনেকেই নিশ্চিত ছিলেন, শাপলা মিডিয়া ইন্টারন্যাশনালের নায়িকা হিসেবে আবার দেখা যাবে তাকে। কিন্তু রোববার গণমাধ্যমে খবর আসে, টিকটক ভিডিও না করাসহ তিনটি শর্ত না মানায় বাদ পড়েছেন দীঘি। নেওয়া হয়েছে নবাগত নায়িকা শালুককে! তবে শর্তের বিষয়টি নিয়ে বিস্ময় প্রকাশ করলেন দীঘি। জানালেন, তিনটি কেন, কোনও শর্তই তিনি পাননি। দীঘি বলেন, ‘‘আমাকে তো কোনও শর্তই দেওয়া হয়নি। ছবিটি করতে পারছি না শিডিউল জটিলতার কারণে। ‘মানব দাবন’ শুটিং যখন শুরু হবে, সেসময় আমার অন্য ছবির কাজ আছে। তাই আমি সিনেমাটি থেকে সরে দাঁড়িয়েছি।’’ তিনি আরও বলেন, ‘টিকটকে ভিডিও করতে পারবো না- এমন কোন শর্ত দেওয়া হয়নি। সেলিম আংকেল আমাকে পরামর্শ দিয়েছেন, টিকটক ভিডিও কম করতে। তিনি আমার মুরব্বি, তিনি আরও কিছু পরামর্শ দিয়েছেন আমাকে। এখানে শর্তের বিষয়টি কেন আসছে? বিভিন্ন গণমাধ্যমে দেখলাম, সবাই শর্ত, শর্ত লিখছে; কেন?’ এদিকে, বিষয়টি জানাতে চাওয়া হয়েছিল ছবিটির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান শাপলা মিডিয়ার কর্ণধার সেলিম খানের কাছে। তিনি বলেন, ‘দীঘি ছবিতে থাকছেন- এমন কথা আমি কখনও বলিনি। তবে যে আর্টিস্টকে সবসময় টিকটকে দেখা যায়, তাকে কেন লোকে টাকা দিয়ে হলে ছবি দেখবে- এটাও বিষয়। আমার সঙ্গে শর্ত বিষয়ে কোনও কথা হয়নি। আমার প্রডাকশনের কেউ কথা বলে থাকলে, বলতে পারে। আমি ১৭ অক্টোবরের ডেটে আর্টিস্ট (শালুক) পেয়েছি, নিয়ে নিয়েছি।’ খবরে এসেছিল, এ প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটি তিনটি শর্ত দিয়েছিল দীঘিকে। কিন্তু কোনোটাই মানতে রাজি হননি দীঘি। শতগুলো হলো- ফেসবুক বেশি বেশি ছবি বা টিকটকে ভিডিও করতে পারবেন না। শাপলা মিডিয়াই প্রথম ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়া ভাই’ সিনেমাতে দীঘিকে নেয়। সেজন্য তাকে শর্ত দেওয়া হয়- ব্যাক টু ব্যাক শাপলা মিডিয়ার পাঁচটি সিনেমা করতে হবে। আর ১৭ অক্টোবর থেকে শুটিং করতে হবে। উল্লেখ্য, ‘মানব দাবন’ পরিচালনা করছেন বজলুর রাশেদ চৌধুরী। ১৬ অক্টোবর কলকাতা থেকে ঢাকায় আসবেন বনি। আগামী ১৭ অক্টোবর চাঁদপুরে শুরু হবে ছবিটির শুটিং।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *