সাঁথিয়ায় স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ ; ধর্ষক আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক, পাবনা : পাবনার সাঁথিয়ায় ৯ম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রীকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় জনি হোসেন (১৭) নামের ১০ম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থীকে আটক করেছে সাঁথিয়া থানা পুলিশ।

ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার ক্ষেতুপাড়া ইউনিয়নের বিষ্ণপুর গ্রামের পশ্চিমপাড়া অভিযুক্তের ফুপা আবু সাঈদের বাড়িতে। অভিযুক্ত জনি বিষ্ণপুর গ্রামের আব্দুস সালামের ছেলে ও মনিরুল ইসলাম উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণীর ছাত্র। এ ঘটনায় ধর্ষিতার ভাই বাদী হয়ে শনিবার রাতে সাঁথিয়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

রোববার সকালে ধর্ষিতার ডাক্তারী পরীক্ষা শেষে ধর্ষককে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন থানা পুলিশ।

ধর্ষিতার ভাই অভিযোগে জানায়, শনিবার সকাল সাড়ে আটটার দিকে তার বোন প্রাইভেট পড়ার উদ্যেশ্যে বিষ্ণুপুর গ্রামের আবু সাঈদের বাড়ির পাশ দিয়ে যাবার সময় জনি তাকে আবু সাঈদের বাড়ির টিনের ঘরে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে জনিকে আটক করে পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে দুজনকেই থানায় নিয়ে আসেন। পরে ওইদিন রাতে ধর্ষিতার ভাই বাদী হয়ে সাঁথিয়া থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ে করেন। জানা গেছে ওরা দুজনই একই বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী।

এ ব্যাপারে সাঁথিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ আসিফ মোহাম্মদ সিদ্দিকুল ইসলাম জানান, ধর্ষণের অভিযোগে মামলা হয়েছে। রোববার ধর্ষিতার ডাক্তারি পরীক্ষা শেষে অভিযুক্তকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!