সুজানগরে সরিষার হলুদ ফুলে কৃষকের মুখে হাসি

নিজস্ব প্রতিবেদক, সুজানগর : চলতি রবি মৌসুমে সুজানগরের মাঠে মাঠে সরিষার হলুদ ফুল দেখে কৃষকের মুখে হাসি ফুটেছে। বিশেষ করে চরাঞ্চলের অধিকাংশ জমিতে এবার সরিষার বাম্পার ফলন হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দেওয়ায় কৃষকের চোখে-মুখে দেখা দিয়েছে আনন্দের হাসি।

উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা যায়, এবছর উপজেলার ১০টি ইউনিয়নে সাড়ে ৬হাজার হেক্টর জমিতে সরিষা আবাদ করা হয়েছে। এর মধ্যে উপজেলার ভায়না, সাতবাড়ীয়া, নাজিরগঞ্জ এবং সাগরকান্দী ইউনিয়নের চরাঞ্চলের জমিতেই আবাদ করা হয়েছে প্রায় তিন হাজার হেক্টর জমিতে।

উপজেলার বড় থেকে শুরু করে প্রান্তিক কৃষকরা পর্যন্ত এবার সরিষা আবাদ করেছেন। উপজেলার খলিলপুর গ্রামের কৃষক আবদুল জলিল বলেন বোরো ধান আবাদে প্রচুর খরচ হয়। আর ওই খরচ পোষাতে বেশিরভাগ কৃষক সরিষা আবাদ করে থাকেন। তাছাড়া গত বছর সরিষার দামও বেশ ভাল ছিল।

ফলে এবছর উপজেলার সর্বস্তরের কৃষক কম-বেশি সরিষা আবাদ করেছেন। ইতোমধ্যে মাঠে মাঠে শোভা পাচ্ছে সরিষার হলুদ ফুল। বিশেষ করে চরাঞ্চলের উঁচু জমিতে আগাম আবাদ করা সরিষার হলুদ ফুলে ফুলে সেজেছে ফসলের মাঠ।

এসব সরিষা কৃষকের ঘরে উঠতে এখনও ২০/২৫দিন সময় লাগবে। তবে সরিষা ঘরে উঠতে দেরি থাকলেও সরিষা ফুলের অপরূপ সৌন্দর্য দেখে কৃষকের মুখে হাসি ফুটেছে। সরিষার হলুদ ফুলই কৃষকের মনে জানান দিচ্ছে এবার সরিষার বাম্পার ফলন হবে।

এদিকে সরিষার ফুলে ফুলে চলছে মৌমাছির গুঞ্জন। মৌমাছি ব্যস্ত সরিষা ফুলের পাপড়ি থেকে মধু আহরণ করতে। পাশাপাশি এখন মধু পিপাসুরা সরিষা ফুলের খাঁটি মধু কিনতে ছুটছেন মৌয়ালদের বাড়ি বাড়ি।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ময়নুল হক সরকার জানান, অনুকূল আবহাওয়া আর সঠিক সময়ে সার, বিষ দেওয়ায় চলতি রবি মৌসুমে উপজেলার সর্বত্র সরিষা ভাল হয়েছে। আশা করছি এ বছর বাম্পার ফলন হবে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *