সৌন্দর্য হারানোর ভয়ে কোহলি

স্পোর্টস: দর্শকে ঠাসা গ্যালারি, সমর্থকদের উচ্চৈঃস্বরে চিৎকার-সাধারণত এমন স্টেডিয়ামে খেলতে অভ্যস্ত বিরাট কোহলি। সেখানে হুট করে দর্শকশূন্য মাঠে খেলার কথা যেন ভাবতেই পারছেন না তিনি। করোনাভাইরাসের জন্য শঙ্কা জেগেছে তেমনই। ভারত অধিনায়কের শঙ্কা এতে ক্রিকেট হারাতে পারে সৌন্দর্য। ম্যাচ হয়ে যেতে পারে নিরুত্তাপ।

কোভিড-১৯ রোগের প্রকোপে গত মার্চ থেকে বন্ধ মাঠের ক্রিকেট। স্থগিত হয়ে গেছে অনেক সিরিজ ও টুর্নামেন্ট। পরিস্থিতির একটু উন্নতি হলে মাঠে ফিরতে পারে ক্রিকেট। শুরুতে খেলা হতে পারে দর্শকদের উপস্থিতি ছাড়াই। ব্যাটিং কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকার বলেছিলেন, দর্শকদের ছাড়া খেলা ক্রিকেটারদের জন্য হবে হতাশার। স্টার স্পোর্টসের একটি আয়োজনে কোহলির কণ্ঠে শোনা গেল সেই সুর।

“দর্শকশূন্য মাঠে খেলা অনেকটা সম্ভাব্য অবস্থায় আছে, হয়ত হবেও। কিন্তু সত্যি কথা বলতে আমি জানি না, সবাই বিষয়টি কীভাবে নিবে। কারণ, আমরা অনেক উৎসাহী দর্শকের সামনে খেলে অভ্যস্ত।” “জানি, লড়াইটা হবে দারুণ প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ। কিন্তু দর্শকের সঙ্গে ক্রিকেটারদের সম্পৃক্ততার যে অনুভূতি এবং খেলার যে একটা চাপা উত্তেজনা, যা স্টেডিয়ামে সবার মধ্যে থাকে; এই অনুভূতিগুলো তৈরি করা খুবই কঠিন।”

পরিস্থিতি দাবি করলে দর্শকশূন্য মাঠে খেলবেন কোহলি। কিন্তু ভরা স্টেডিয়ামে দর্শকদের প্রতিক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যে জাদুকরী মুহূর্তের জন্ম নেয় সেগুলোর অভাব তীব্রভাবে অনুভব করবেন সময়ের অন্যতম সেরা এই ব্যাটসম্যান। “সবকিছু চলতে থাকবে, কিন্তু মাঠের পরিবেশের কারণে ভেতরে যে জাদুকরী অবস্থা হয়, সেটা কেউ অনুভব করবে কী না-এ নিয়ে আমি সন্দিহান। খেলাটি যেভাবে খেলা উচিত, আমরা সেভাবেই খেলব। কিন্তু সেই জাদুকরী মুহূর্তগুলো আনা কঠিন হবে।”

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *