‘হ্যান্ডশেক’ নয়

স্পোর্টস: মিরপুর একাডেমি মাঠের বাইরে দাঁড়িয়ে কয়েক জনের সঙ্গে গল্প করছিলেন শাহরিয়ার নাফীস। সেদিকে এগিয়ে যেতেই হাত বাঁকিয়ে কনুই বাড়িয়ে দিলেন সিনিয়র এই ক্রিকেটার। মুখে তার হাসি, “হ্যান্ডশেক করা যাবে না ভাই, এলবো দিয়ে করা নিরাপদ।” খানিক পর অনুশীলনের জন্য এলেন তামিম ইকবাল। মাঠে যার সঙ্গে দেখা হচ্ছে, তিনিও কনুই বাড়িয়ে ছুঁইছেন আরেক জনের কনুই।

তামিমের ভাষায়, এটি ‘এলবোশেক!’ ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের আগে মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামের একাডেমি মাঠে চলছে দলগুলির অনুশীলন। দিনজুড়ে সেখানে যেন মেলা বসেছে ক্রিকেটারদের। একসঙ্গেই অনুশীলনে থাকেন প্রায় ৭০-৮০ জন ক্রিকেটার। তাদের কুশল বিনিময় চলছিল এভাবেই। কনুইয়ের সঙ্গে কনুই মেলাচ্ছিলেন কেউ, অনেকে আবার মুষ্টিবদ্ধ হাত বাড়িয়ে টোকা দিচ্ছিলেন আলতো করে।

অভ্যাসবশত হ্যান্ডশেক করার পর কেউ কেউ এমন ভঙ্গি করছিলেন, যেন হয়ে গেছে মস্ত বড় ভুল! সবই করোনাভাইরাসের প্রভাবে সতর্ক থাকার প্রয়াস। বিশ্ব জুড়ে বিভিন্ন লিগ, খেলা, টুর্নামেন্ট বন্ধ কিংবা স্থগিত হয়ে যাচ্ছে করোনাভাইরাসের কারণে। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) পিছিয়ে দিয়েছে মুজিববর্ষের টি-টোয়েন্টি ও কনসার্ট। ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ অবশ্য শুরু হচ্ছে সময়মতোই।

রোববার থেকে মিরপুর, ফতুল্লা ও বিকেএসপিতে হবে লিগের খেলা। ঘরোয়া ক্রিকেটে এমনিতেই দর্শক খুব বেশি হয় না। এবার আরও নিরুৎসাহিত করা হয়েছে দর্শকদের। তাই লিগের খেলা চালিয়ে যাওয়ার ঝুঁকি তেমন দেখছে না বিসিবি। তবে ক্রিকেটারদের সতর্ক করে দেওয়া হয়েছে করমর্দনের ক্ষেত্রে। বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরি জানালেন, বোর্ডের মেডিকেল টিমও প্রস্তুত থাকবে যে কোনো প্রয়োজনে। “আমাদের পক্ষ থেকে কিছু পরামর্শ দেওয়া হয়েছে দলগুলির জন্য। করোনাভাইরাসকে বিবেচনায় রেখে সরকার যেসব পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে ও মেডিকেল নির্দেশনা দিচ্ছে, সেগুলো আমরা অনুসরণ করব।

বিসিবি থেকে এটা নিশ্চিত করা হবে, যদি কোনো খেলোয়াড় বা কর্মকর্তা সামান্যতম অসুস্থ হন বা লক্ষণ দেখা যায়, তাৎক্ষণিক যেন বিসিবির মেডিক্যাল টিম এবং ক্লাবকে জানায়। ক্লাব যেন আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করে। আমরা সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা নেব।”

“এর বাইরে হ্যান্ডসেকের যে রীতি আছে, সেটা কিভাবে কমানো যায়ৃআমরা যেহেতু অভ্যস্ত হয়ে গেছি এটায়, সেই বিষয়টি মাথায় রেখে সবদিক বিবেচনা করে আমরা নিরুৎসাহিত করছি হ্যান্ডশেক করতে।”

শনিবার বিকেলেই সবগুলি ক্লাবের কোচ, অধিনায়ক ও ম্যানেজারদের সঙ্গে সভায় বিস্তারিত সবকিছু বলে দেওয়ার কথা বিসিবির পক্ষ থেকে। বিসিবির নির্দেশনার বাইরেও ক্রিকেটাররা সতর্ক ব্যক্তিগতভাবে।

মাত্র কদিন আগে বাংলাদেশ ওয়ানডে দলের নেতৃত্ব পাওয়া তামিম লিগে নেতৃত্ব দেবেন প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাবকে। জানিয়ে দিলেন, করমর্দনের বিকল্প ব্যবহার করবেন তিনি। হ্যান্ডশেক যত কম করা যায়ৃসত্যি কথা।

আমাদের সংস্কৃতিতে এটা শুনতে খুব বেশি লোক হয়ত পছন্দ করবে না। কিন্তু পরিস্থিতিই এরকমৃহ্যান্ডশেকের আরও অন্য উপায় আছে। আমরা এলবোশেক করব হয়তোৃ।”

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *