১৫১৬ টাকা কমে সোনার ভরি ৭১ হাজার ৯৬৭ টাকা

অর্থনীতি ডেস্ক: মে মোসে দুই দফায় প্রতি ভরিতে ৪ হাজার ৩৭৪ টাকায় দাম বাড়ানোর পর প্রায় মাসখানেক পর এসে সোনার ভরিতে ১ হাজার ৫১৬ টাকা দাম কমানো হয়েছে। সে হিসাবে ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম হচ্ছে ৭১ হাজার ৯৬৭ টাকা। বিশ্ববাজারে সোনার দাম কমে যাওয়ার কারণেই ভোক্তাদের কথা বিবেচনায় করে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি (বাজুস)। বাজুস সভাপতি এনামুল হক খান ও সাধারণ সম্পাদক দিলীপ কুমার আগারওয়ালার সই করা এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। বাজুসের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, রোববার থেকে ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরি (১১ দশমিক ৬৬৪ গ্রাম) সোনার দাম হবে ৭১ হাজার ৯৬৭ টাকা। এ ছাড়া ২১ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম ৬৮ হাজার ৮১৭ টাকা, ১৮ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম ৬০ হাজার ৬৮ টাকা ও সনাতন পদ্ধতির প্রতি ভরি সোনার দাম ৪৯ হাজার ৫৪৬ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। সোনার দাম কমানোর কারণ উল্লেখ করে বিজ্ঞপ্তিতে বাজুস বলছে, করোনাকালে বিশ্ব অর্থনীতির নানা জটিল সমীকরণের মধ্যেও আন্তর্জাতিক বাজারে সোনার দাম কিছুটা নিম্নমুখী। তাই দেশীয় জুয়েলারি বাজারের অচলাবস্থা কাটাতে এবং ভোক্তাদের কথা চিন্তা করে বাজুস দেশের বাজারে সোনার দাম প্রতি ভরিতে ১ হাজার ৫১৬ টাকা কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এর আগে গত মে মাসে দুই দফায় সোনার দাম বাড়ানো হয়। এর মধ্যে গত ১০ মে ভরিতে ২ হাজার ৩৩৩ টাকা বাড়ালে প্রতি ভরি সোনার দাম হয় ৭১ হাজার ৪৪৩ টাকা। ২৩ মে দ্বিতীয় দফায় ভরিতে বাড়ানো হয় আরও ২ হাজার ৪১ টাকা। তাতে মে মাসেই দুই দফায় ৪ হাজার ৩৭৪ টাকা বেড়ে গিয়ে সোনার ভরি দাঁড়ায় ৭৩ হাজার ৪৮৩ টাকায়। অন্যদিকে, গত মার্চে সবশেষ সোনার দাম কমানো হয়েছিল। ওই সময় দুই দফায় প্রতি ভরি সোনার দাম কমানো হয় ৩ হাজার ৫৫৭ টাকা। তাতে ১০ মার্চ থেকে দেশের বাজারে প্রতি ভরি ২২ ক্যারেটের সোনার দাম ৬৯ হাজার ১১০ টাকায় নেমে এসেছিল। এরপর মে মাসে দুই দফায় দাম বাড়ার পর জুনে দাম কমালেও সোনার ভরি এখনো প্রায় ৭২ হাজার টাকা ছুঁই ছুঁই করছে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *