৫-১১ বছরের শিশুদের ফাইজারের টিকা দিতে মার্কিন বিশেষজ্ঞদের সুপারিশ

বিদেশ: পাঁচ থেকে ১১ বছর বয়সী শিশুদের জন্য ফাইজার-বায়োএনটেকের তৈরি কোভিড-১৯ টিকা ব্যবহারের সুপারিশ করেছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য ও ওষুধ প্রশাসনের (এফডিএ) বিশেষজ্ঞেরা। স্থানীয় সময় গত মঙ্গলবার তাঁরা এ সুপারিশ করেন। সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। বিশেষজ্ঞদের সুপারিশের ফলে এখন দু-এক সপ্তাহের মধ্যেই শিশুদের জন্য ফাইজারের টিকার জরুরি অনুমোদন দেওয়া হবে বলে মনে করা হচ্ছে। যুক্তরাষ্ট্রে পাঁচ থেকে ১১ বছরের প্রায় দুই কোটি ৮০ লাখ শিশু রয়েছে। বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রে ফাইজারের টিকা ১২ বছর থেকে শুরু করে এর বেশি বয়সীদের দেওয়া হচ্ছে। ট্রায়ালে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে গত সেপ্টেম্বরে মার্কিন ওষুধ প্রস্তুতকারক কোম্পানি ফাইজার জানিয়েছিল, পাঁচ থেকে ১১ বছরের শিশুদের বেলায় তাদের টিকা নিরাপদ। এফডিএ’র বিশেষজ্ঞ প্যানেলের ভোটের সুপারিশের পর এখন কোম্পানিটিকে এফডিএ এবং রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ কেন্দ্রের (সিডিসি) চূড়ান্ত অনুমোদনের জন্য অপেক্ষা করতে হবে। আগামী ২ নভেম্বরের মধ্যে এসব প্রক্রিয়া সেরে তার দু-এক দিন পরই পাঁচ থেকে ১১ বছর বয়সী শিশুদের টিকা দেওয়া শুরু করবে ফাইজার। এফডিএ’র বিশেষজ্ঞ প্যানেল জানিয়েছে, শিশুদের বেলায় ফাইজারের টিকা প্রয়োগে নানাবিধ ঝুঁকির তুলনায় উপকারিতা বেশি। তবে, ফাইজার ও মডার্নার টিকায় হৃদযন্ত্রের যন্ত্রণার মতো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার ঝুঁকিও বিবেচনায় রয়েছে বিশেষজ্ঞদের। যুক্তরাষ্ট্রের সরকারি তথ্য অনুযায়ী, মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত পাঁচ থেকে ১১ বছর বয়সী ১৬০টি শিশু করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। এ মহামারিতে যুক্তরাষ্ট্রে সর্বমোট প্রায় সাত লাখ ৪০ হাজার মানুষের প্রাণহানি ঘটেছে। অন্যদিকে, যুক্তরাষ্ট্রের টিকা প্রস্তুতকারক কোম্পানি মডার্না গত সোমবার জানিয়েছে, তারাও ছয় থেকে ১১ বছর বয়সী শিশুদের ওপর তাদের টিকার ট্রায়ালের তথ্য নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলোর কাছে জমা দিতে যাচ্ছে।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *